Green Energy Foundation of Bangladesh (GEFB)

আলো-আয়না ও তাপ থেকে বিদ্যুৎ

এবার সোলার প্যানেলের সঙ্গে আয়না ব্যবহার করে তাপ থেকে উৎপাদন করা হবে বিদ্যুৎ। এর মাধ্যমে চালানো যাবে সিমেন্ট কারখানাও।

সম্প্রতি এই খাতে পরিবেশবান্ধব বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান হেলিওজেনের সঙ্গে যৌথ বিনিয়োগ করেছেন মাইক্রোসফটের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও বিশ্বের শীর্ষ ধনী বিল গেটস। হেলিওজেনই বিশ্বের প্রথম প্রতিষ্ঠান, যারা ভারী শিল্পপ্রতিষ্ঠান পরিচালনায় কার্বন নিঃসরণ ছাড়াই বিদ্যুৎ উৎপাদন করবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়াভিত্তিক প্রতিষ্ঠান হেলিওজেন বলছে, এই প্রযুক্তির মাধ্যমে পানি থেকে দেড় হাজার সেলসিয়াস তাপমাত্রায় হাইড্রোজেন কণাকেও পৃথক করে জীবাশ্মমুক্ত বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যাবে। তা দিয়ে বাড়িঘর উষ্ণ, গাড়ি ও কলকারখানা চলবে।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী বিল গ্রস জানান, তাদের লক্ষ্য প্রযুক্তিগত অগ্রগতিকে কাজে লাগিয়ে বিশ্বব্যাপী শিল্প ও যানবাহনের মাধ্যমে নির্গমন হওয়া ৭৫ শতাংশ কার্বনকে ঠেকানো। নির্ধারিত বস্তুর ওপর সূর্যের আলোর প্রতিফলন ঘটাতে সফটওয়্যারের মাধ্যমে বিশাল আকারের বিপুলসংখ্যক আয়না বিন্যাস করা হবে।

এর মাধ্যমে বাণিজ্যিক সোলার পদ্ধতির তুলনায় প্রায় তিনগুণ বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদিত হবে। প্রযুক্তির মাধ্যমে তাপ ব্যবহার করে এতটাই বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যাবে যে, কার্বন নির্গমন ছাড়াই সিমেন্ট কারখানা পরিচালনা করা সম্ভব হবে। তেল ও কয়লার পর বিশ্বে তৃতীয় দূষণকারী উপাদান সিমেন্ট। গার্ডিয়ান।